আফগানিস্তানের দুই প্রদেশে পাকিস্তানের হামলা, নিহত ৪৭

আফগানিস্তানের খোস্ত ও কুনার প্রদেশে পাকিস্তানি বাহিনীর বিমান হামলায় কমপক্ষে ৪৭ জন নিহত হয়েছেন। এর মধ্যে খোস্ত প্রদেশে নিহত হয়েছেন ৪১ জন এবং কুনার প্রদেশে ছয়জন। দুটি প্রদেশে নিহতদের অধিকাংশ নারী ও শিশু। হামলায় আহত হয়েছেন আরও অন্তত ২২ জন।

শনিবার (১৬ এপ্রিল) সীমান্তবর্তী এ দুটি প্রদেশে পাকিস্তান সামরিক বাহিনীর বিমান থেকে রকেট ও বোমা নিক্ষেপের ঘটনা ঘটে।

আফগানিস্তানের শীর্ষ টেলিভিশন নেটওয়ার্ক টলো নিউজের বরাত এ তথ্য জানিয়েছে কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল-জাজিরা।

আল-জাজিরার প্রতিবেদনে বলা হয়, ‘খোস্ত প্রদেশের তথ্য ও সংস্কৃতিবিষয়ক বিভাগের পরিচালক শাবির আহমদ ওসমানি রোববার বার্তা সংস্থা এএফপিকে জানিয়েছেন, পাকিস্তানি সামরিক বাহিনীর বিমান থেকে দফায় দফায় বোমা নিক্ষেপ করা হচ্ছে। ৪১ জন সাধারণ মানুষ নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও ২২ জন। আরও দুটি অফিসিয়াল সূত্র খোস্ত ও কুনার প্রদেশে এ হতাহতের খবর নিশ্চিত করেছে।’

এদিকে, আফগানিস্তানের শীর্ষ টেলিভিশন নেটওয়ার্ক টলো নিউজ খোস্তা ও কুনার প্রদেশে পাকিস্তানের হামলায় হতাহতদের ছবি প্রকাশ করেছে। সেখানে দেখা যাচ্ছে, বেশ কয়েকজন শিশুর মরদেহ পড়ে আছে।

এদিকে, পাকিস্তানি বাহিনীর চালানো রকেট হামলায় আফগানিস্তানে হতাহতের ঘটনায় ইসলামাবাদকে সতর্ক করেছে তালেবান সরকার।

তালেবান সরকারের মুখপাত্র জাবিউল্লাহ মুজাহিদ বলেছেন, ‘পাকিস্তানের দিক থেকে আফগানিস্তানের ভূখণ্ডে হামলার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছে ইসলামিক আমিরাত অব আফগানিস্তান। এটা নিষ্ঠুরতা। এটা আফগানিস্তান ও পাকিস্তানের মধ্যে শত্রুতার পথ করে দিচ্ছে।’

তিনি বলেন, ‘হামলার পুনরাবৃত্তি ঠেকাতে সব বিকল্প কাজে লাগাবো আফগান সরকার। পাকিস্‌তানের মনে রাখা উচিত, যুদ্ধ শুরু হলে কোনো পক্ষেরই লাভ হবে না। সেটা এ অঞ্চলে অস্থিতিশীলতা সৃষ্টি করবে।’

অন্যদিকে আফগানিস্তান সীমান্ত থেকে পাকিস্তানের নিরাপত্তা বাহিনীকে লক্ষ্য করে হামলার ঘটনা উল্লেখযোগ্য হারে বেড়েছে বলে দাবি করেছে পাকিস্তান। এ ধরনের হামলায় জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে তালেবান সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে দেশটি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *